গ্রাম্য সালিশের প্রভাবে টঙ্গীবাড়ীতে একটি পরিবার কোনঠাসা

চাপ-১

২৭ জুলাই  ২০১৬ (মুন্সিগঞ্জ নিউজ ডেস্ক) : গ্রাম্য সালিশে সন্ত্রাসিদের প্রভাবের কারণে প্রকৃত বিচার থেকে বঞ্চিত হচ্ছে একটি পরিবার। ঘটনাটি ঘটেছে টঙ্গীবাড়ী উপজেলার যশলং ইউনিয়নের চাপ গ্রামে। গ্রাম্য সালিশরা প্রভাবশালী হওয়ার কারণে তারা থানায় যেও মামলা করতে পারছেনা। জমি সংক্রান্ত বিরোধের কারণে নানানভাবে হামলার শিকার হচ্ছেন হাবিবুর রহমানের পরিবার। পৈতিক সম্পত্তি নিয়ে হাবিুবুর রহমানের সাথে কাদির মোল্লার সঙ্গে ৮৫ বছর ধরে সাড়ে ১৩ শতাংশ জমি নিয়ে বিরোধের তাপমাত্রা বেড়ে চলেছে।

টঙ্গীবাড়ী উপজেলা আ’লীগের সভাপতি জগলুল হালদার ভুতু গ্রাম্য সালিশের মাধ্যমে হাবিবুর রহমানকে সাড়ে ৮ শতাংশ জমি ভাগ করে দেন। তারা নিরিহ লোক হিসেবে তা মেনে নেন। এরপর এই ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আজহার ভুতু সাথে আলাপ করে হাবিবুরের জায়গায় গাছ ও টিন দিয়ে বেড়া দেন। কিন্তু কয়েকদিন পর কাদির মোল্লা কয়েক’শ লোক নিয়ে সেখানে হামলা করে। গাছ কেটে নেয় ও টিনের বেড়া খুলে ফেলে। হামলা করে হাবিবুরের বসত ঘরে। এতে বাড়ির নারী ও শিশু আহত হয়। এই বিষয় নিয়ে থানায় গেলে গ্রাম্য সালিশের প্রভাবে হাবিবুরের স্ত্রী সোনিয়া থানায় মামলা করতে পারেনি। বিষয়টি গ্রাম্য সালিশের মাধ্যমে মীমাংসার আশ্বাস দেয় গ্রাম্য সালিশের প্রধানরা। কিন্তু এখন সালিশের নামে এখন তাল বাহানা করছে মাতবরা।

চাপ-২

এখানে যুবলীগের নামে কামাল মোল্লা নাটের গুরু হিসেবে কাছ করছে বলে অভিযোগ উঠেছে। তার সাথে হাত মিলিয়েছে বিএনপি সমর্থক করিম মিঝি। কামাল মোল্লা হচ্ছে এখানকার শীর্ষ সন্ত্রাসী উজ্জ্বলের সহযোগি। তার প্রভাবে কামাল মোল্লা এখানে দাবরিয়ে বেড়ায়। কামাল মোল্লার সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের কারণে এখানে আ’লীগের ভোট ব্যাংক কমে যাচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here