কাঠাদিয়া শিমুলিয়ার ইউনিয়ন পরিষদের জায়গা দখল করে দোকান

কাঠাদিয়া শিমুলিয়ার ইউনিয়ন পরিষদের জায়গা দখল করে দোকানকাজী সাব্বির আহমেদ দীপু, রবিবার, ৪ মার্চ ২০১৮, মুন্সিগঞ্জ নিউজ ডটকম: রাতের আঁধারে মুন্সিগঞ্জের টঙ্গিবাড়ী উপজেলার রহিমগঞ্জ বাজারে (বিওনিয়া) ইউনিয়ন পরিষদের জায়গায় দোকান নির্মাণ করেছে দুর্বৃত্তরা। শুক্রবার রাতে এ দোকানটি নির্মাণ করা হয়।

গতকাল শনিবার সকালে ব্যবসায়ী ও স্থানীয় লোকজন বাজারের অস্থায়ী মসজিদঘেঁষা একটি দোকান দেখতে পেয়ে বিস্মিত হন। দোকানটি যে স্থানে নির্মাণ করা হয়েছে, তা কাঠাদিয়া শিমুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের জায়গা। ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ড ইউপি সদস্য ও ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. গনি ঢালী গংয়ের নেতৃত্বে রাতের আঁধারে দোকানটি নির্মাণ করা হয় বলে রহিমগঞ্জ বাজারের ব্যবসায়ী ও মসজিদ কমিটির একাধিক সদস্য জানিয়েছেন।

শনিবার বিকেলে সরেজমিন দেখা গেছে, রহিমগঞ্জ বাজারঘেঁষা কাঠাদিয়া শিমুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের সাড়ে ১০ শতাংশ সরকারি সম্পত্তির ওপর নির্মিত সড়কের সামনেই ছোট আকারের একটি দোকান দাঁড়িয়ে আছে। এ দোকানটি নির্মাণের সঙ্গে জড়িতরা আওয়ামী লীগের ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড কমিটির বিভিন্ন পদে থাকায় বাজারের সাধারণ ব্যবসায়ীরা নাম প্রকাশ না করলেও আকার-ইঙ্গিতে বলেছেন, তারা সরকারি দলের নেতাকর্মী।

তবে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের একাধিক নেতাকর্মী জানান, রাতের আঁধারে সরকারি জায়গা দখল করে দোকান নির্মাণের সঙ্গে জড়িতদের অপকর্মের কারণে আওয়ামী লীগের বদনাম হচ্ছে।

বাজারের মসজিদ কমিটির সহসভাপতি সাত্তার সিকদার বলেন, শনিবার সকালে বাজারে গিয়ে দেখতে পাই, ইউনিয়ন পরিষদের সরকারি সম্পত্তিতে নতুন একটি দোকান নির্মাণ করা হয়েছে। স্থানীয়রা জানিয়েছেন, ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও ইউপি সদস্য মো. গনি ঢালী গংয়ের নেতৃত্বে শুক্রবার রাতে এ দোকানটি নির্মাণ করা হয়। শনিবার দিনভর এর সঙ্গে জড়িতদের কোনো তৎপরতা লক্ষ্য করা যায়নি।

ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি শাহীন ফকির জানান, অবৈধ ভাবে রাতের আঁধারে ইউনিয়ন পরিষদের সরকারি সম্পত্তিতে দোকান নির্মাণের কারণে গ্রামবাসীর মধ্যে চাপা ক্ষোভ বিরাজ করছে।

জেলা পরিষদের সদস্য মো. আনিসুর রহমান জানান, নানা অপকর্ম করে আওয়ামী লীগের দুর্নাম করা হচ্ছে। তাদের বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়া উচিত।

এ প্রসঙ্গে ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও ইউপি সদস্য মো. গনি ঢালী জানান, একটি টং দোকান নির্মাণ করা হয়েছে। বিষয়টি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউপি সদস্যরা অবগত। রাতে দোকান নির্মাণ করা হলো কেন- জানতে চাইলে গনি ঢালী বলেন, তৈরি করা দোকান আনতে বিলম্ব হওয়ায় রাত হয়ে যায়।

তবে কাঠাদিয়া শিমুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ নেতা মো. নুর হোসেন বেপারী বলেন, শনিবার সকালে ইউনিয়ন পরিষদের জায়গায় দোকান নির্মাণের খবর পেয়েছি। ঢাকা থেকে এলাকায় গিয়েই দোকান সরিয়ে ফেলা হবে। ইউপি সদস্য গনি ঢালীর কথা সঠিক নয়। দোকান নির্মাণের বিষয়ে পরিষদের কোনো সিদ্ধান্ত নেই। যারা দোকান নির্মাণ করেছে তারা তা অবৈধভাবে করেছে।

সমকাল

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here