মুন্সিগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগ সভাপতি ফয়সাল পরীক্ষার কারণে অন্তর্বর্তীকালীন জামিন পেয়েছেন

সব মানুষের সৃজন প্রয়াসী অনলাইন পোর্টাল:

সোমবার, ১লা জুলাই ২০১৯, মুন্সিগঞ্জ নিউজ ডটকম:

bg20190630071145ফয়সাল মৃধামাস্টার্স পরীক্ষার কারণে অন্তর্বর্তীকালীন জামিন পেয়েছেন স্বর্ণালংকার, টাকা চুরি এবং মারধরের মামলায় গ্রেফতার মুন্সিগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগ সভাপতি ফয়সাল মৃধা।

গতকাল রোববার (৩০জুন) দুপুরে মুন্সিগঞ্জের ১নং আমলি আদালতে তার জামিন শুনানি হয়। আদালতের বিচারক সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট শান্তি চন্দ্র দেবনাথ ছাত্রলীগ সভাপতির তিনদিনের অন্তর্বর্তীকালীন জামিন মঞ্জুর করেন।

এর আগে শনিবার (২৯ জুন) রাতে শহরের বাজার এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে সদর থানা পুলিশ।

মুন্সিগঞ্জ সদর উপজেলার চরকেওয়ারের টরকী গ্রামের রেহানা বেগম মামলার বাদী হয়েছেন। গত বৃহস্পতিবার (২৭ জুন) বাদীর বাড়িতে গিয়ে মারধর করে স্বর্ণালংকার ও টাকা চুরিসহ বিভিন্ন অভিযাগে ফয়সালের বিরুদ্ধে মামলা হয়।

১৪৩, ১৪৮, ৩২৩, ৩৮০, ৫০৬ ও ১১৪ ধারায় দায়ের করা মামলায় ছয়জনকে আসামি করা হয়েছে। এরমধ্যে প্রধান আসামি ফয়সাল।

কোর্ট ইন্সপেক্টর হেদায়েত উল্লাহ জানান, বেলা ১২টার দিকে জেলা ছাত্রলীগের সভাপতিকে কোর্টে আনা হয়। পরে ১২টার দিকে মুন্সিগঞ্জ সদর ১নং আমলি আদালতের বিচারক তার জামিন মঞ্জুর করেন।

মুন্সিগঞ্জ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আলমগীর হোসাইন জানান, শনিবার সন্ধ্যায় সদর উপজেলার টরকী গ্রামের জুলহাস বেপারীর স্ত্রী রেহানা বেগম নামে এক নারী ফয়সালের বিরুদ্ধে স্বর্ণালংকার ও টাকা চুরি এবং মারধরের অভিযোগে মুন্সিগঞ্জ সদর থানায় মামলা দায়ের করেন। পরে তাৎক্ষণিক পুলিশ অভিযানে নেমে তাকে গ্রেফতার করে।

তিনি বলেন, ফয়সালের বিরুদ্ধে আগে অনেক অভিযোগ পেয়েছি। মুন্সিগঞ্জ সদর থানায় তার বিরুদ্ধে বেশ কয়েকটি মামলা হয়েছে। সব মামলায় তিনি জামিনে রয়েছেন।

বাংলা ট্রিবিউন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here