অপরাধ দমনে নতুন কৌশল আরএমপি’র, গুরুত্ব পাচ্ছে সিসি ক্যামেরা

23 August 2019,Friday.Munshiganjnews.com

মাসুদ রানা রাব্বানী :

রাজশাহীতে সাম্প্রতিক সময়ে কয়েকটি অপরাধ সংঘটিত হওয়ার পর বেড়েছে পুলিশের তৎপরতা। নতুন কৌশলে দায়িত্ব বন্টন করা হচ্ছে। শহরে পুলিশের টহল বাড়ানো হয়েছে রাতে।

রাত-দিন সব সময়ই বেড়েছে গোয়েন্দা নজরদারি। রাজশাহী মহানগর পুলিশের (আরএমপি) শীর্ষ কর্মকর্তারাও মাঠ পর্যায়ে তদারকি করছেন। এদিকে, অপরাধ নিয়ন্ত্রনে সিসি ক্যামেরার উপর বাড়তি গুরুত্ব দিচ্ছে আরএমপি।

সম্প্রতি নগরীর হেতেমখাঁ এলাকায় সিটি কলেজ শিক্ষার্থী খুনের রহস্য উদঘাটন করেছে পুলিশ সিসি ক্যামেরার ফুটেজের সূত্র ধরেই। মনিচত্বর এলাকায় রুয়েট শিক্ষককে লাঞ্ছিত ও তার স্ত্রীকে যৌন হয়রানীর ঘটনার রহস্য উদঘাটনও সম্ভব হয়েছে সিসি ক্যামেরার সূত্র ধরেই তিনজন বখাটেকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

এরপর রুয়েটের এক ছাত্রী অটো রিকশায় লাঞ্ছিত হয়েছেন এমন অভিযোগের তদন্তেও গুরুত্ব পাচ্ছে সিসি ক্যামেরা।

শিক্ষা নগরী খ্যাত রাজশাহীতে কয়েকটি যৌন হেনস্তার ঘটনা বেশ আলোচিত হয়েছে। এছাড়া, এই সময়ে কয়েকটি ছিনতাইএরও ঘটনা ঘটে। সাম্প্রতিক সময়ে রাজশাহী নগরীতে বখাটেদের উৎপাত বেশ আলোচিত হচ্ছে।

অনেক ঘটনায় ভুক্তোভোগিরা পুলিশকে অবগত না করে নিজেরাই চেপে রাখছেন। কেউ কেউ আবার পুলিশকে না জানিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তা প্রকাশ করছেন। এমন ক্ষেত্রে শুরুতে খানিকটা বিব্রতকর অবস্থায় পড়ছে পুলিশ।

গত ৬ জুলাই ভোরে ঈদের ছুটিতে বাড়ি ফেরার পথে রাজশাহী সিটি কলেজের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র ফারদিন আশারিয়া রাব্বিকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়। এনিয়ে পুলিশের তদন্তে বেরিয়ে আসে নেশার টাকার জন্য ছিনতাই করতে গিয়ে না পেরে রনক নামে এক যুবক রাব্বিকে হত্যা করে। পরে রনক ঘটনার দায় স্বীকার করে স্বিকারোক্তি মূলক জবানবন্দি দিয়েছে আদালতে।

১০ আগস্ট সন্ধ্যার পর নগরীর ব্যস্ততম মনিচত্বর এলাকায় স্ত্রীকে যৌন হয়রানিতে বাধা দিতে গিয়ে লাঞ্ছিত হন রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (রুয়েট) শিক্ষক রাশিদুল ইসলাম। রাশিদুল ইসলাম থানায় অভিযোগ না করে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেন।

এ নিয়ে এককাধি স্থানীয় ও জাতীয় পত্রিকায় সংবাদটি প্রকাশিত হয়। এ ঘটনায় পুলিশ তার ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেখে নিজে বাদি হয়ে জিডি করেন। পরে তাকে থানায় ডেকে সব ঘটনা শোনার পর মামলা করা পরামর্শ দেন। পুলিশের আশ্বাসের প্রেক্ষিতে গত ১৬ আগস্ট শিক্ষকের স্ত্রী তাবাসুম ফারজানা বাদি হয়ে বোয়ালিয়া থানায় মামলা করেন।

এ ঘটনায় জড়িতদের চিহ্নিত করে ৩জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ঘটনা তদন্তে রাজশাহী মহানগর পুলিশের (আরএমপি) গোয়েন্দা শাখা সিসি ক্যামেরার ফুটেজকে কাজে লাগায় এবং সবাইকে চিহ্নিত করতে সক্ষম হয়। এছাড়া নগরীর বিভিন্নস্থানে ছিনতাই ও বখাটেদের তৎপরতার খবর পায় পুলিশ। এ সকল অপরাধের প্রেক্ষিতে নগর পুলিশ তাদের তৎপরতা বাড়িয়েছে।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে, এসব ঘটনা নিয়ে পুলিশের শীর্ষ পর্যায়ে একাধিক সভা হয়। এসব সভায় যেকোন মুল্যে অপরাধ বন্ধে কার্যকর ব্যবস্থা নেয়ার জন্য মাঠ পর্যায়ের কর্মকর্তাদের প্রতি নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। এদিকে, মহানগরীতে পুলিশের ডিউটিতেও কিছুটা পরিবর্তন আনা হয়েছে। বাড়ানো হয়েছে সাদা পোশাকের পুলিশি কার্যক্রম।

রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার (সদর) গোলাম রুহুল কদ্দুস বলেন, রাজশাহীতে সব সময় পুলিশ ঘটনার সাথে সাথে ব্যবস্থা গ্রহণ করে। এজন্য সবাইকে অনুরোধ করবো যে কোন ঘনটায় হোক না কেন পুলিশকে অবহিত করতে আথবা ঘটনাস্থলে থেকে ৯৯৯ এ ফোন করে পুলিশের সহায়তা নিতে।

অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার বলেন, সাম্প্রতিক সময়ে আপরাধ যেমন ঘটছে তার পরই পুলিশ মুখ্য ভুমিকাও রাখছে আপরাধী ধরতে। এর পাশাপাশি রাজশাহীতে আগের থেকে তুলনামূলক সকল পর্যায়ে নিরাপত্তা বাড়ানো হয়েছে। পুলিশের পাহারায় তাদের নজরদারিতে মাঠে থাকছেন পুলিশের উর্দ্ধতন কর্মকর্তারা।

এর পাশাপাশি সাদা পোশাকে নজরদারি বাড়ানো হয়েছে। নজরদারি করা হচ্ছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও। এছাড়াও নগরীর গুরুত্বপূর্ন পয়েন্টগুলোকে সিসি ক্যামেরার আওতায় আনা হচ্ছে।

নগরীর বিভিন্ন পয়েন্টে থাকা সিসি টিভি ক্যমেরার যেগুলো নষ্ট রয়েছে সেগুলো মেরামত করা হচ্ছে। নতুন নতুন পয়েন্টে সিসি ক্যামেরা বসানোর উদ্যোগ নেয়া হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, রাজশাহী নগরীতে কোন আপরাধই সহ্য করা হবেনা। সাম্প্রতিক সময়ে যারা ফেসবুকে পোস্ট দিচ্ছেন পুলিশ তারও তদন্ত করছে। ঘটনার সত্যতা পেলে যেমন ব্যবস্থা নেয়া হবে, কেউ যদি মিথ্য তথ্য প্রকাশ করে বা মানুষকে বিব্রতকর তথ্য দেয় তাহলে তাদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেবে পুলিশ। তবে যেকোন ঘটনা ফেসবুকে না দিয়ে পুলিশকে আগে জানানোর অনুরোধ করেন এই পুলিশ কর্মকর্তা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here