রাজশাহীতে একমাসে ১৭ নারী ও শিশু নির্যাতনের শিকার

৩১ আগস্ট ২০১৯, শনিবার, মুন্সিগঞ্জ নিউজ ডটকম:

মাসুদ রানা রাব্বানী :

রাজশাহীতে গত একমাসে (আগস্ট) ১৭ জন নারী ও শিশু নির্যাতনের শিকার হয়েছেন। এর মধ্যে ১১টি নারী ও ৬টি শিশু।

শনিবার দুপুরে রাজশাহীর বেসরকারি উন্নয়ন ও মানবাধিকার সংস্থা ‘এ্যাসোসিয়েশন ফর কম্যুনিটি ডেভেলপমেন্ট-এসিডি’ এর ‘রিসার্চ, ডকুমেন্টেশন অ্যান্ড পাবলিকেশন ইউনিট’ থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানায়।

এসিডি জানায়, গত (৪ আগস্ট) বাগমারা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে যৌন হয়রানীর দায়ে বখাটের কারাদ-, তার ছয়দিন পরে (১০ আগস্ট) নগরীর সোনাদিঘীর মোড় এলাকায় রাজশাহী প্রকৌশল প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (রুয়েট) এক শিক্ষকের স্ত্রী বখাটেদের হাতে শ্লীলতাহানির শিকার, তার নয়দিন পরে (১৯ আগস্ট) মোহনপুরে স্ত্রী ডিভোর্স দেয়ায় ইন্টারনেটে নগ্ন ছবি ছাড়ে স্বামী, তার পরের দিন (২০ আগস্ট) নগরীতে রুয়েট শিক্ষার্থী যৌন হয়রানির শিকার, দুর্গাপুরে অস্ত্রের মুখে কিশোরী অপহরণ, তার তিনদিন পরে (২৩ আগস্ট) নগরীতে স্কুল থেকে ফেরার পথে ছাত্রী অপহরণ।

সর্বশেষ গত (২৯ আগস্ট) রাতে নগরীতে পুলিশ কনস্টেবলের হাতে এক নারী শ্লীলতাহানির শিকার হন।
সংস্থাটি আরো জানায়, জেলায় আগস্ট মাসে ১১ নারী নির্যাতনের ঘটনার মধ্যে রাজশাহী নগরীর থানাগুলোতে সংঘটিত হয়েছে ৬টি। নগরীর বাইরের থানাগুলোতে আরো ৫টি। এর মধ্যে জেলার বাগমারায় ২টি, পুঠিয়ায় ২টি, মোহনপুরে ১টি নারী নির্যাতনের ঘটনা ঘটে। এসব ঘটনার মধ্যে ধর্ষণ ১টি, ধর্ষণচেষ্টা ১টি, আত্মহত্যা ৩টি, যৌন হয়রানির ঘটনা ঘটে ৫টি।

এছাড়া জেলায় গত মাসে শিশু নির্যাতনের ঘটনা ঘটে ৬টি। এসব ঘটনার মধ্যে রাজশাহী নগরীর থানাগুলোতে সংঘটিত হয়েছে ১টি। নগরীর বাইরের থানাগুলোতে আরো ৫টি নির্যাতনের ঘটনা ঘটে। এর মধ্যে জেলার মোহনপুরে ১টি, দুর্গাপুরে ২টি এবং গোদাগাড়ীতে ২ টি শিশু নির্যাতনের খবর পাওয়া গেছে। এসব ঘটনার মধ্যে ধর্ষণ ১ টি, অপহরণ ২ টি, আত্মহত্যা ১টি এবং যৌন হয়রানির দুটি ঘটনা ঘটে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here