নিউ ইয়র্কের টাইমস স্কয়ারে ‘ট্রাম্প মৃত্যুঘড়ি

নিউ ইয়র্ক শহরের কেন্দ্রস্থল টাইমস স্কয়ারে বসানো হয়েছে নতুন একটি বিলবোর্ড। প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের বেপরোয়া নেতৃত্বে করোনাভাইরাসে মৃত্যু কত সেটিই জানান দিচ্ছে ট্রাম্প মৃত্যুঘড়ি বা ‘ট্রাম্প ডেথ ক্লক’ নামের এই বিলবোর্ড। এতে দেখানো হচ্ছে যুক্তরাষ্ট্রের সেইসব কোভিড-১৯ রোগীর সংখ্যা,

যাদের মৃত্যু হয়েছে, অথচ চেষ্টা করলে বাঁচানো যেত। বিলবোর্ডটির স্রষ্টা হচ্ছেন চলচ্চিত্র নির্মাতা ইউজিন জারেকি। ট্রাম্পকে এত মানুষের মৃত্যুর জন্য জবাবদিহিতার মুখে দাঁড় করানোর চেষ্টাতেই তার এ পদক্ষেপ। জারেকির কথায়, ট্রাম্প দ্রুত ব্যবস্থা নিলে ওই রোগীরা হয়ত বাঁচতেন।

টাইমস স্কয়ারের একটি ভবনের ছাদের ওপর এই বসানো এ ঘড়িকে তাই প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের ব্যর্থতারই স্মারক আখ্যা দিয়েছেন জারেকি। বিবিসি জানায়, এ ঘড়ি টিক টিক করে যা বলছে তার ব্যাখ্যায় ‘ট্রাম্প ডেথ ক্লকের’ ওয়েবসাইটে বলা হয়েছে, ১৬ মার্চের আগ পর্যন্ত করোনাভাইরাস ঠেকাতে কোনো পদক্ষেপ নিতে রাজি হননি ট্রাম্প।

কিন্তু এর ঠিক এক সপ্তাহ আগে ৯ মার্চেই ট্রাম্প প্রশাসন সামাজিক দূরত্ব বাধ্যতামূলক করলে এবং স্কুল বন্ধ করলে ৬০ শতাংশ মানুষকে হয়ত বাঁচানো যেত।

মঙ্গলবার দুপুরে জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের হালনাগাদ করা তথ্যে অনুযায়ী, যুক্তরাষ্ট্রে শনাক্ত হওয়া নতুন করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ১৩ লাখ ৪৭ হাজার ৯৩৬ জন এবং মৃতের সংখ্যা ৮০ হাজার ৬৮৪ জনে দাঁড়িয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here