মুন্সিগঞ্জ পুরাতন কাচারীতে ইজি বাইক স্ট্যান্ডে রমরমা চাঁদাবাজি

মঙ্গলবার, ৫ জুন ২০১৮, মুন্সিগঞ্জ নিউজ ডটকম:

34304804_407942023017784_8853289535480528896_n

মুন্সিগঞ্জ পৌর শহরের পুরাতন কাচারী চত্বর এলাকায় ইজি বাইক স্ট্যান্ডে রমরমা চাঁদাবাজির অভিযোগ পাওয়া যাচ্ছে। এখান থেকে প্রতিদিন পৌরস্থ পশ্চিম দেওভোগের বিলেরকানি ও রনছ পারুলপাড়া ব্রিজ এলাকায় প্রায় ৪০ থেকে ৪৩টি ইজি বাইক আপ ডাউন করে। এখানকার রাস্তার দূরত্ব অনুসারে ইজি বাইক এর প্রকারভেদে ভাড়া বেশি নেয়া হচ্ছে বলে চলাচলকারী যাত্রীরা

অভিযোগ করছেন। পুরাতন কাচারী থেকে দেওভোগ বাজার ও বিলেরকানি পর্যন্ত ১০ টাকা এবং বৈখর ও রনছ পর্যন্ত ১৫ টাকা করে ভাড়া আদায় করা হচ্ছে। এই পথের ভাড়া ইজি বাইকের চালকরাই নিজেরাই নির্ধারণ করে উল্লেখিত ভাড়া যাত্রীদের কাছ থেকে আদায় করা হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে। এই পথের ভাড়া আদায়ে সরকারি কোন নীতিমালা নেই?

এদিকে ইজি বাইকের যাত্রীর ধারণ ক্ষমতা হচ্ছে মোট ৪জন। সেখানে জবরস্তোতিভাবে যাত্রী বসানো হচ্ছে সাত থেকে আটজন। এর প্রতিবাদ করলে ইজি বাইকের চালক গাড়ী না ছাড়ার হুমকি দিয়ে থাকেন। এসব নানা কারণে এই পথের যাত্রীরা বিড়ম্বনায় রয়েছেন।

তাছাড়া পুরাতন কাচারীঘাট থেকে এই পথে যেসব ইজি বাইক ছেড়ে যায়, তাদের প্রত্যেক গাড়ী থেকে এই স্ট্যান্ডে ২০ থেকে ৩০ টাকা চাঁদা দিয়ে গাড়ী ছাড়তে হচ্ছে। নাম প্রকাশ না করার সর্তে এই পথের ইজি বাইক চালকরা চাঁদার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তারা আরো জানান, মধ্যে কোটগাঁওয়ের পান্নুর ছেলে মিন্টু প্রতিদিন এখান থেকে এই চাঁদাবাজির টাকা আদায় করে থাকেন।

এ বিষয়ে মিন্টুর সাথে মঙ্গলবার সকাল ১১টা ৩৫মিনিটের সময় তার সাথে একাধিকবার মোবাইল ফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে তার মোবাইল ফোনটি বন্ধ পাওয়া যায়।
এই পথের চলাচলকারী অনেক চালকই মাদক আসক্ত বলে অভিযোগ উঠেছে। তাদের ব্যবহার মাঝে মাঝে অস্বাভাবিক হয়ে উঠে বলে জানা যায়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here