গজারিয়ায় নিখোঁজের আট দিনপর যুবকের লাশ উদ্ধার

সব মানুষের সৃজন প্রয়াসী অনলাইন পোর্টাল:

বৃহস্পতিবার, ২৮ জুন ২০১৯, মুন্সিগঞ্জ নিউজ ডটকম:

নাজির হোসেন ও তুষার আহমেদ:

Lass-75452-1547136254গজারিয়া উপজেলায় নিখোঁজের ৮ দিনপর এক অটোরিক্সা চালকের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। বুধবার দুপুরে উপজেলার গজারিয়া ইউনিয়নের বালুচর এলাকার মেঘনা নদীর পাড় থেকে লাশটি উদ্ধার করে পুলিশ।

নিহত চালকের নাম মো. আব্দুর রাজ্জাক(১৮)। রাজ্জাক উপজেলার ইমামপুর ইউনিয়নের দৌলতপুর এলাকার প্রয়াত হেদায়েতুল্লাহর ছেলে। সে গজারিয়া ফাঁড়ির পশ্চিম পাশে টিএনটি এলাকায় থাকত। এবং ভাড়ায় অটোরিক্সা চালাত। পুলশি ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, বালুচর এলাকার মেঘনা নদীর পাড়ে একটি গর্ত থেকে পচা,উৎকট ঘন্ধ বরে হচ্ছলি।

গর্তের পাশে গেলে দখো যায়, ভিতর মানুষের একটি হাত বেড়িয়ে আছে। পরে পুলিশে খবর দেওয়া হয়। গজারিয়া তদন্ত কেন্দ্রের পরির্দশক(ইন্সিপেক্টর) মো. আমিনুল ইসলাম বলেন, স্থানীয়দের মাধ্যেমে খবর পেয়ে দুপুর একটার দিকে লাশটি উদ্ধার করা হয়। লাশের পচঁন ধরেছে। লাশের গলা ও পায়ের রগকাটা ছিলো।

62363273_2050265475282497_4206399130416709632_nধারণা করা হচ্ছে রাজ্জাকে হত্যা করে ওই গর্তে পুতে রাখা হয়েছিল। তিনি আরো বলেন, রাজ্জাক গাড়িসহ ৮ দিন আগে নিখোঁজ হয়। অথচ গাড়ির মালিক ও নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে কোন অভিযোগ অথবা সাধারণ ডাইরি করা হয়নি।

এ ঘটনায় গাড়ির মালিক মো. রনি মোল্লাকে(২০) জিজ্ঞেসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে।আটক রনি মোল্লা (২০) সরকারি হরগঙ্গা কলেজের ইন্টারমিডিয়েট দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র, প্রকৃত ঘটনা জানার জন্য তদন্ত চলছে।

রনির মা রুশিয়া বেগম বলেন, রাজ্জাক অটোরিকশা নিয়ে নিখোঁজ হলে ভেবে ছিলাম সে গাড়ি সহ পালিয়ে গেছে। এ জন্য আইনের আশ্রয় নিতে চাই। তবে রাজ্জাকের আত্মীয়রা আইনের আশ্রয় না নেওয়ার অনুরোধ করে।

গাড়ির দাম দিয়ে দিবে বলে আসস্ত করে।তাই থানায় যাওয়া হয়নি। রাজ্জাকের মা পারভিন বেগম জানান, প্রতিদিনের মত ওই দিন রাজ্জাক গাড়ি নিয়ে বেড় হয়। এর পর আর বাড়ি ফিরে আসেনি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here