ফরিদপুর জেলা পরিষদ চেয়ারম্যানের মৃত্যুতে মুন্সীগঞ্জ জেলা পরিষদ চেয়ারম্যানের শোক জ্ঞাপন

lokman-hossen-mridha-100720-01bbok ok-MZ১০ জুলাই২০২০ফরিদপুর জেলা পরিষদ চেয়ারম্যানজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা লোকমান হোসেন(৭৭) করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন আজ শুক্রবার বেলা ১১টায় ঢাকায় শেখ রাসেল গ্যাস্ট্রোলিভার ইনস্টিটিউট ও হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। 

তার মৃত্যুতে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ সভাপতিমাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শোক প্রকাশ করেনআরও শোক জানান বাংলাদেশ জাতীয় সংসদ উপনেতা সৈয়দা সাজেদা চৌধুরী,এম.পি

২০১৭ সালের ২৩ জুন ফরিদপুর জেলা পরিষদের চেয়ারম্যানের দায়িত্ব নেন তিনি। ৭৭ বছর বয়সী এই আওয়ামী লীগ নেতা জেলা রেড ক্রিসেন্ড সোসাইটির সভাপতি ছিলেন। তার স্ত্রীচার ছেলে ও এক মেয়ে রয়েছে

লোকমান হোসেনের একান্ত সহকারী সচিব রেজাউল কমির মিঠু জানানগত ২২জুন তিনি অসুস্থ হলে তাকে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। ২৩ জুন পরীক্ষায় তার করোনাভাইরাস ধরা পড়ে। পরে অবস্থার অবনতি হলে ঢাকায় শেখ রাসেল গ্যাস্ট্রোলিভার ইনস্টিটিউট ও হাসপাতালে ভর্তি করা হয়

 সেখানে তার অবস্থার কিছুটা উন্নতি হয়। বৃহস্পতিবার তার শ্বাসকষ্ট দেখা দিলে ভেনটিলেটরের আওতায় নেওয়া হয়। কিন্তু সেখানে তিনি মারা যান

বাংলাদেশ জেলা পরিষদ ফোরামের সভাপতিমুন্সীগঞ্জ জেলা পরিষদ চেয়ারম্যানজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বঙ্গবন্ধুর চীফ সিকিউরিটি অফিসার আলহাজ্ব মোঃ মহিউদ্দিন এক শোক বার্তায় বলেনমরহুম লোকমান হোসেন ছিলেন জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর একজন বিশ্বস্ত সহকর্মী,

একজন নিবেদিত প্রান আওয়ামী লীগের স্থানীয় পর্যায়ের নেতামাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি আস্থাবান থেকে সততা এবং নিষ্ঠার সাথে ফরিদপুর জেলা পরিষদের দায়িত্ব পালন করেছেন এবং জেলার উন্নয়নে কাজ করেছেন

আমার সাথে তার একটা আন্তরিক সুসম্পর্ক ছিল, মরহুম লোকমান হোসেন এর মৃত্যুতে আমি খুবই মর্মাহত, আমি মরহুমের আত্মার শান্তি কামনা করছি এবং তার শোক পরিবারের সদস্যদের প্রতি সমবেদনা  জানাই  সম্পাদকচেতনায় একাত্তর  

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here