ডিঙ্গাভাঙ্গায় সুতার মিল শ্রমিক সাত্তারের হাতের দুইটি আঙুল নেই!

5নিজস্ব প্রতিবেদক: মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার মিরকাদিম পৌরসভার দক্ষিণ রাম গোপালপুরের মৃত ওসমান গনির ছেলে আবদুল সাত্তার এর হাতের দুটি আঙুল নেই। এর ফলে তিনি বর্তমানে কর্মহীন হয়ে পড়েছে। তার কর্ম না থাকায় তার পরিবার বর্তমানে মানবেতর জীবন যাপন করছে।

অভাব অনটনের কারণে সে বর্তমানে হাতের চিকিৎসাও করাতে পারছেন না বলে তার পরিবার সূত্রে জানা গেছে। গত মাসের ২৬ শে আগস্ট সকালে সে মুক্তারপুর বিসিক শিল্প নগরীতে থাকা সুতার কারখানা কাজ করা কালে টুইষ্টিং মেশিনের সুতার সাথে পেঁচিয়ে যায় তার হাত।

তার ফলে তার ডান হাতের দুইটি আঙ্গুল মেশিনের চাপে কেটে পরে যায়। এরপর তাকে মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে নেয়ার পরে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়। এরপরে চিকিৎসার জন্য কোম্পানির তরফ থেকে সাত্তারকে প্রাথমিকভাবে ১২ হাজার টাকা এর ১৫ দিন পরে ২ হাজার টাকা মোট ১৪ হাজার টাকা তাকে প্রদান করা হয়।

তবুও সাত্তার তার পরিবারের ২ ছেলে মেয়েকে নিয়ে সংসারের সকল খরচ নিয়ে তারা বর্তমানে মানবেতর জীবন যাপন করছেন বলে জানা গেছে। সাত্তারের দুই আঙুলে এখন অপারেশন করে রড লাগিয়ে রাখা হয়েছে তার এই অঙ্গ হানির জন্য সে ভবিষ্যত নিয়ে চিন্তিত আছেন।

তার পরিবারের কথা চিন্তা করে সাত্তারকে এককালীন ক্ষতি পূরণ দেয়া হলে তার পরিবারের সকলের জন্য মঙ্গল হতো বলে জানিয়েছেন ভুক্তভোগী পরিবার। এ সুতার মিলের মালিক হচ্ছেন মোহাম্মদ হোসেন পুস্তি। তিনি মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা যুবদলের সভাপতি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here