মুন্সীগঞ্জে ধর্ষক হৃদয় মোল্লার ফাঁসির দাবিতে মানববন্ধন

1মোহাম্মদ সেলিম ও তোফাজ্জ্বল হোসেন:
‘ধর্ষকের আস্তানা বাংলায় হবে না, ধর্ষক তুমি জানোয়ার তাড়াতাড়ি বাড়ি ছাড়’ এ শ্লোগন সামনে রেখে মুন্সীগঞ্জে ডালিয়া (১৩) ছদ্ম নামের এক শিক্ষার্থীর ধর্ষণ করায় ধর্ষক মো. হৃদয় হাসান মোল্লার বিরুদ্ধে মানববন্ধন করেছে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা।

গতকাল রবিবার সকাল ১০টার দিকে মুন্সীগঞ্জ প্রেসক্লাবের সামনে সড়কে ধর্ষণকারীর বিরুদ্ধে এ মাননবন্ধন করা হয়। ধর্ষক মো. হৃদয় হাসান মোল্লা (২২) টঙ্গীবাড়ি উপজেলার চর বেশনাল এলাকার মো. আমজাত হোসেন ওরফে কাইল্যার ছেলে। এ মানববন্ধনে ধর্ষিতার পরিবার ছাড়াও জেলার সর্বোচ্চ বিদ্যাপিঠ সরকারি হরগঙ্গা কলেজ, স্কুল ও মাদ্রাসার শিক্ষার্থীদের এতে অংশ নেন।

এ সময় তাদের হাতে ধর্ষকের বিরুদ্ধে নানান শ্লোগান ও ব্যানার দিয়ে ধর্ষকের ফাঁসির দাবি জানিয়েছেন তারা। এসময় মানববন্ধনকারী ধর্ষক হৃদয়ের সর্বোচ্চ সাজা ফাঁসি চেয়ে সাংবাদিকদের বলেছেন, ধর্ষক হৃদয়ের বিচার দেখে সমাজের মানুষরুপি ধর্ষকরা যেন ভয়ে নিজেদেরকে সংশোধন করে নেয়।

ভব্যিষতে যাতে এমন মর্মান্তিক ধর্ষণের স্বীকার আর কোন মা বোন না হয়, সেই লক্ষে ধর্ষক হৃদয় মোল্লার ফাঁসি চেয়ে প্রধানমন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষন করছে মানববন্ধনকারীরা। উল্লেখ, ১৫ সেপ্টেম্বর ধর্ষিতা ডালিয়া সকালে শিলই নানীর বাড়ির উদ্দেশ্যে রওনা হয়ে শিলই ব্রীজের কাছে গেলে আগে থেকে ওঁৎ পেতে থাকা ধর্ষক হৃদয় মোল্লা ডালিয়ার হাত মুখ চেপে সিএনজি করে নিয়ে যায়।

পরে ডালিয়াকে ধর্ষণ করে বিকেল ৪টার দিকে বেশনাল কবরস্থানে রক্তাক্ত অবস্থায় ফেলে চলে যায়। খবর পেয়ে তার পরিবার তাকে উদ্ধার করে মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক ডালিয়াকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ঢাকা মেডিকেল কলেজে প্রেরণ করে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here