শ্রীনগরে গৃহবধুকে আগুন দেয়ার অভিযোগ

174179604_1745505975658056_2004945294071520133_nতুষার আহাম্মেদ:

শ্রীনগরে সুমি আক্তার (২২) নামের এক গৃহবধূর গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে শ্বশুরবাড়ির লোকজনের বিরুদ্ধে। আগুনে দগ্ধ ওই গৃহবধুকে আংশকাজনক অবস্থা শেখ হাসিনা বার্ণ

ইন্সটিটিউটে ভর্তি করা হয়েছে। শনিবার ১৭ এপ্রিল সকাল ১০টার দিকে শ্রীনগর উপজেলার কোলাপাড়া ব্রাক্ষ্মণ পাইকসা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

এদিকে আগুনে দগ্ধ সুমিকে স্থানীয় ভাবে চিকিৎসা না দিয়ে ঘটনা ধামাচাপা দিতে শ্বশুরবাড়ির লোকজনই তাকে ঢাকায় নিয়ে যায়।

জানা যায়, দুই বছর পূর্বে ব্রাক্ষ্মণ পাইকসা গ্রামের আব্দুল খালেকের ছেলে আল-আমিনের সাথে মাদারীপুর জেলার শিবচরের বাসিন্দা মো: লুৎফরের মেয়ে সুমির বিয়ে হয়।

বিয়ের কিছু দিন সংসার ভালো চললেও বিগত কয়েক মাস যাবত যৌতুক সহ নানা কারণে সুমির উপর নির্যাতন করে আসছিলো স্বামী আলামিন, শ্বশুর খালেক ও শাশুড়ি।

শনিবার সকালে আবারো যৌতুকে দাবিতে সুমির সাথে স্বামী আল-আমিনে বাকবিতন্ডা তৈরি হলে এক পর্যায় আল-আমিন তার পিতা মাতার সহযোগিতায় কেরোসিন ঢেলে সুমির গায়ে আগুন দেয়। এ সময় বসত ঘর থেকে সুমি দৌড়ে বাড়ির পাশের পুকুরে লাফিয়ে পড়লে তার আত্মচিৎকারে আশেপাশের লোকজন ছুটে আসে।

পরে বিষয়টি ধামাচাপা দিতে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে তাকে না ভর্তি করে ঢাকায় নিয়ে যায় শ্বশুর বাড়ির লোকজন।

এ বিষয়ে মুঠোফোনে আল-আমিনের সাথে যোগাযোগ করা হলেও তাকে ফোনে পাওয়া যায়নি। এদিকে ঘটনাটি জানা জানি হলে দুপুরে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (লৌহজং ও শ্রীনগর সার্কেল) মো: আসাদুজ্জামান। এ বিষয়ে তিনি জানান, ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে। বিস্তারিত খতিয়ে দেখা হচ্ছে। অভিযোগ পেলে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here