টঙ্গীবাড়ীর সলিমাবাদে প্রাচীন আমলের মসজিদ

mnews-groupমোহাম্মদ সেলিম:

টঙ্গীবাড়ীর আব্দুল্লাপুরে পাঠান আমলের প্রাচীন সলিমাবাদ শাহী জামে মসজিদ। মসজিদটি তিন গম্বুজ বিশিষ্ঠ। আগে প্রাচীন মসজিদের ভেতরে তিন কাতারে মোট ১৫জন মুসল্লি নামাজ আদায় করতে পারতো। এখন সেই ব্যবস্থা আর নেই।

প্রাচীন মসজিদের বাইরের বারান্দায় দুই কাতারে মুসল্লিরা নামাজ আদায় করতে। প্রাচীন এ মসজিদের উপর ও আর চারটি পিলার অংশটুকু ঠিক রেখে মসজিদের দক্ষিণ দিকে বিশাল আকারে আরো একটি নতুন মসজিদ নির্মামাণ করেছে এখানকার স্থানীয়রা। প্রাচীন মসজিদের পিলারের নিচ দিয়ে পূর্বে পশ্চিমে বর্তমানে মুসল্লিরা আসা যাওয়া করতে পারে।

যুগের পরে যুগে এলাকায় বসতিতে মানুষ বেড়ে যাওয়ায় মুসল্লিদের চাহিদায় এখানে এ নতুন মসজিদ নির্মাণ হয়। প্রাচীন মসজিদে রাতে আলোর জন্য মোমবাতির বড় বড় দুটি ঝারবাতি ছিল। এখন একটি ঝারবাতি নতুন মসজিদে সুন্দর্যবৃদ্ধির জন্য লাগানো হয়েছে। অন্য একটি ঝারবাতি তুলে রাখা হয়েছে।

প্রাচীন বিক্রমপুরে এক সময়ে ইসলাম প্রচারের জন্য সুদূর ইরাক থেকে একাধিক আওলিয়ারা এখানে আসেন। তারা খানকা হিসেবে এ মসজিদে অবস্থান নেন। আর এখান থেকেই তারা প্রাচীন বিক্রমপুরে ইসলাম প্রচারে মাঠে নামেন।

পাঠান আমলের একই আদলে প্রাচীন বিক্রমপুরে এ ধরণের একাধিক মসজিদ পাওয়া গেছে। প্রাচীন এ মসজিদে চীনা মাটির নানা রকমের কাজ রয়েছে এখানে। যা মসজিদের সুন্দর্যকে আরো বৃদ্ধি করেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here