গজারিয়ায় জমি সংক্রান্ত বিরোধে সংঘর্ষ আহত-৬

গজারিয়ায় জমি সংক্রান্ত বিরোধে সংঘর্ষ আহত-৬গজারিয়ায় জমিসংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে সালিশ বৈঠকে দুই গ্রুপের সংঘর্ষে মহিলাসহ ৬ জন আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।
গত মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে বাউশিয়া ইউনিয়নের পােড়াচক বাউশিয়া গ্রামে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

আহতরা হলো পােড়াচক বাউশিয়া গ্রামের মােঃ শাহাদাৎ প্রধান, মােঃ ফরহাদ প্রধান, আমিরুল ইসলাম, সাহিদা আক্তার, রানু বেগম ও শান্তি বেগম। আহতদের মাঝে গুরুতর আহত অবস্থায় মােঃ ফরহাদ প্রধান কে ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে চিকিৎসাধীন পাঠানো হয়েছে।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, জমিসংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে সালিশ বৈঠকে উপজেলার বাউশিয়া ইউনিয়নে পোড়াচক বাউশিয়া গ্রামে মােঃ শাহাদাৎ প্রধান ও আমিরুল ইসলামের লোকজনের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে।

এ সময় উভয় পক্ষের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে।আহতদের মধ্যে ৬ জনকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। এর মধ্যে মােঃ ফরহাদ প্রধান গুরুতর আহত হওয়ায় ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে প্রেরণ করেন।

আহত মােঃ শাহাদাৎ প্রধান জানান, জমিসংক্রান্ত বিষয়াদি নিয়ে গত মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে বাউশিয়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান মনা দেওয়ানের বাড়িতে সালিশ বৈঠক বসে।

সালিশ বৈঠকের একপর্যায়ে প্রতিপক্ষ হান্নান দেওয়ান ও তার লোকজন আমার বাবাকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে। আমি প্রতিবাদ করলে পরিকল্পিত ভাবে আমাদের উপর হান্নান সমর্থক দল হামলা করে। হামলায় আমি ও আমার ছোট ভাই ফরহাদ প্রধান

এবং চাচা তো বোন রানু বেগম গুরুতর আহত হয়েছি। স্থানীয় লোকজন আহত অবস্থায় উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে ফরহাদ কে আশঙ্কা অবস্থায় ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে প্রেরনর করা হয়।
হান্নান সমর্থক দলের প্রতিপক্ষ আমিরুল ইসলাম জানান, এলাকার চিহ্নিত সন্ত্রাস বিএনপির ছাত্রদলের ক্যাডার শাহাদাৎ প্রধান আমাদের পৈত্রিক সম্পত্তি জোরপূর্বক দখলের চেষ্টা করেন।
এ নিয়ে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান মনা দেওয়ানের বাড়িতে সালিশ বৈঠক বসে। এ সময় শাহাদাৎ প্রধানের নেতৃত্বে সালিশ বৈঠকে তাদের উপর হামলা চালিয়ে এলোপাতাড়ি পিটিয়ে রক্তাক্ত জখম করা হয়েছে আমাকে।

গজারিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) রইছ উদ্দিন জানান, সংঘর্ষের ঘটনায় পাল্টাপাল্টি অভিযোগ পাওয়া গেছে। তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here